নিজামীর গায়েবানা জানাযাকে কেন্দ্র করে শিবিরের সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের নিন্দা

0
111

পি নিউজ ডেস্ক : ১০ মে, দিবাগত রাত ১২.১০ মিনিটে কুখ্যাত রাজাকার আলবদর কমান্ডার মতিউর রহমান নিজামীর ফাঁসির কার্যকরের পর অদ্য ১১ মে বেলা ১.১৫ মিনিটের সময় জামাত শিবিরের ডাকা গায়েবানা জানাযাকে কেন্দ্র শিবির সন্ত্রাসীরা নগরীর চকবাজারস্থ প্যারেড মাঠে প্রবেশ করে গুলি ও ককটেল বোমা নিক্ষেপ করতে করতে ঐতিহ্যবাহী চট্টগ্রাম কলেজে হামলা চালিয়ে শিক্ষকদের গাড়ী ভাংচুরসহ নিরূপায় পরীক্ষার্থীদের উপর সন্ত্রাসী হামলার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছেন চট্টগ্রাম মহানগর ছাত্রলীগ ও চট্টগ্রাম কলেজ ছাত্রলীগ নেতৃবৃন্দ।
বিবৃতি দাতারা হলেন-বাংলাদেশ ছাত্রলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক সহ-সম্পাদক আব্দুল­াহ আল মামুন, ইয়াছির আরাফাত, নগর ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি মোঃ শাকিল, যুগ্ম সম্পাদক ওয়াহেদ রাসেল, উপ সম্পাদক রায়হানুল কবির শামীম, ইসমাইল হোসেন শুভ, সহ-সম্পাদক আবু সায়েম সেতু, নির্বাহী সদস্য বোরহান উদ্দিন গিফারী, জালাল আহমদ রানা, চট্টগ্রাম কলেজ ছাত্রলীগের প্রতিনিধি যথাক্রমে কামরুজ্জামান কমল, রহমত উল্লাহ রিফাত, আব্দুল হামিদ, আজিজুল করিম, মোসলেম উদ্দিন, সুজন, কামরুল হাসান সবুজ, মোজাম্মেল, আকতার হোসেন নয়ন, আনন্দ মজুমদার, মাসুদ, মাহিন, আরিফ, ইরফান, ছাত্রলীগ নেতা মোঃ জোবায়ের বাশার, ইরফান আলী ফাহিম, সাদ্দাম হোসেন, ইমদাদুর রহমান রিয়াদ, সায়মুন ইসলাম রকি, সালাহ উদ্দিন, ওয়াহিদুর রহমান, ইভান হোসেন, ইমরান হোসেন জনি, ইশফাক ফাহিম, দিদারুল আলম দিদার প্রমুখ।
উক্ত যৌথ বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ বলেন, চট্টগ্রাম কলেজ একটি ঐতিহ্যবাহী কলেজ, এখানে মেধা চর্চা করা হয়। দীর্ঘ ২৮ বৎসর যাবৎ দখলে রেখে ঐ কলেজকে শিবিরের আস্তানা গড়ে তুলা হয়েছিল। কিন্তু সাধারণ শিক্ষার্থীদের নিয়ে এই কলেজ থেকে দখলদার শিবিরকে বিতাড়িত করা হয়েছে। আগামীতে এই ধরণের সকল কর্মকাণ্ডের বিরুদ্ধে ছাত্রলীগ চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মাননীয় মেয়র আলহাজ্ব আ.জ.ম নাছির উদ্দিনের নেতৃত্বে দুর্বার আন্দোলন গড়ে তুলবে। বিবৃতিতে হুশিয়ারী উচ্চারণ করে আরও বলেন প্রশাসনের যে সকল কর্মকর্তা শিবিরকে সাহায্য করে যাচ্ছে তাদের বিরুদ্ধে ভবিষ্যতে কঠোর আন্দোলন গড়ে তোলা হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here