ধর্ম অবমাননাকারী শ্যামল কান্তির দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চাই

0
107

পি নিউজ ডেস্ক : বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্রসেনা চট্টগ্রাম মহানগর উত্তর সভাপতি মুহাম্মদ ফরিদুল ইসলাম, সাধারণ স¤পাদক আবদুল কাদের রুবেল ও সাংগঠনিক স¤পাদক রাশেদুল ইসলাম চৌধুরী শনিবার বিকালে একযুক্ত বিবৃতিতে বলেন, নারায়ণগঞ্জের বন্দর উপজেলার পিয়ার সাত্তার উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্ত মহান আল্লাহ তা’য়ালা, পবিত্র ইসলাম ধর্ম ও মুসলমাদেরকে কটুক্তি করা কোটি কোটি মুসলমানের ধর্মীয় অনুভ‚তিতে আঘাত করেছে। অথচ সরকার এই উগ্র মৌলবাদি হিন্দু শিক্ষককে শাস্তির ব্যবস্থা না করে পুরস্কৃত করছে। নেতৃবৃন্দ আরো বলেন, অবিলম্বে এই ধর্ম বিদ্বেষী শ্যামল কান্তির দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি নিশ্চিত করতে হবে। বিবিসি বাংলাসহ বিভিন্ন নির্ভরযোগ্য সংবাদ মাধ্যমে প্রচারিত ধর্ম অবমাননার সত্য ঘটনাকে এক শ্রেণির নাস্তিক্যবাদি মিডিয়া ও বুদ্ধিজীবী কর্তৃক ভিন্নখাতে প্রবাহিত করার অপচেষ্টা করছে বলে তারা অভিযোগ করে বলেন, যখন বিশ্ববিদ্যালয়ের মত পবিত্র স্থানে শিক্ষকদের লাঞ্ছিত করা হয় এবং শিক্ষক কর্তৃক ছাত্রীকে ধর্ষণ করা হয়, তখন শিক্ষকের সম্মান হানি নিয়ে এত উচ্চবাচ্য তো দেখা যায় না। আজ ধর্ম অবমাননাকারীকে জনরোষ থেকে বাঁচাতে স্থানীয় এমপির দেওয়া কানধরা লঘু শাস্তিকে নিয়ে জলঘোলা না করার আহবান জানান। নেতৃবৃন্দ উদ্বেগ প্রকাশ করে বলেন, শিক্ষকগণ সম্মানীয় ব্যক্তিত্ব। তারা জাতির ভবিষ্যত গড়েন। কিন্তু  বিগত কয়েক বছরে দেশের স্কুল-কলেজে হিন্দু শিক্ষক কর্তৃক  ইসলামী বিদ্বেষী বক্তব্যের ১৮ টি অভিযোগ এসেছে, যে সব প্রেক্ষিত সা¤প্রদায়িক দাঙ্গার সৃষ্টি হতে পারে। এসব বিষয়ে সুষ্ঠু তদন্ত সাপেক্ষে শাস্তির ব্যবস্থা করতে হবে। নইলে যেকোন অনাকাঙ্খিত পরিবেশের জন্য সরকার দায়ী থাকবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here